পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রী ধর্ষণের ফলে সাড়ে চার মাসের অন্তঃসত্বা!

বৃহস্পতিবার, ০৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০ | ১:১২ অপরাহ্ণ

পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রী ধর্ষণের ফলে সাড়ে চার মাসের অন্তঃসত্বা!

রাজবাড়ী জেলার গোয়ালন্দে পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রীকে জোড়পূর্বক ধর্ষণ করেছে দুই কন্যা সন্তানের জনক মোঃ ইয়াছিন মন্ডল (৩৪)বলে অভিযোগ উঠেছে। ওই ছাত্রী এখন চার মাসের আন্তঃসত্বা।

ইয়াছিন মন্ডল গোয়ালন্দ পৌরসভার ৭নং ওয়ার্ডের আদর্শ গ্রামের মৃত নবু মন্ডলের ছেলে। এই অভিযোগে ভুত্তভোগী ওই ছাত্রী এ ব্যাপারে গোয়ালন্দ ঘাট থানায় একটি মামলা হয়েছে।

মামলা সূত্রে জানা যায়, নির্যাতনের শিকার ওই কিশোরী গোয়ালন্দ ইদ্রিসিয়া ইসলামীয়া দাখিল মাদ্রাসার পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রী। ২০১৯ সালের সেপ্টেম্বর মাসের শেষে দিকে সন্ধ্যার পর প্রাইভেট পড়ে বাড়িতে আসার পথে ইয়াছিন মন্ডল জোড়পূর্বক তাকে হাত-মুখ বেঁধে নিজের রান্না ঘরে নিয়ে ধর্ষণ করে।

 

 

 

ধর্ষণের পর ওই ছাত্রীকে হুমকি দিয়ে বলে কাউকে বললে তোকে ও তার ভাইকে হত্যা করা হবে। আমি ভয়ে দীর্ঘদিন কাউকে কিছু বলিনি। কিন্ত ২০২০ সালের ২৯ জানুয়ারি মাদ্রাসায় গিয়ে হঠাৎ মাথা ঘুরে পরে যাই। মাদ্রাসার শিক্ষকগণ আমাকে উদ্ধার করে গোয়ালন্দ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে ভর্তি করেন। সেখান থেকে আমাকে ২দিন পর ফরিদপুর মীম ডায়াগনস্টিক সেন্টারে নেওয়া হয়। পরে ডাক্তার জানায়, আমি সাড়ে ৪ মাসের অন্তঃসত্বা। এ ব্যাপারে গোয়ালন্দ ঘাট থানায় নির্যাতনের শিকার কিশোরী বাদী হয়ে ইয়াছিন মন্ডলকে আসামি করে একটি মামলা করেছে।

গোয়ালন্দ ঘাট থানার ওসি (তদন্ত) আব্দুল্লাহ আল তায়াবীর জানান, এ ব্যাপারে গোয়ালন্দ ঘাট থানায় একজনকে আসামি করে একটি মামলা হয়েছে। মামলার আসামি ইয়াছিন মন্ডলকে গ্রেপ্তার করে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।

Development by: webnewsdesign.com