দুই বাসের চাপায় কলেজের শিক্ষার্থী রাজিবের হাত বিচ্ছিন্ন ও মৃত্যুতে চার্জশিট

রবিবার, ০২ ফেব্রুয়ারি ২০২০ | ১:১২ অপরাহ্ণ

দুই বাসের চাপায় কলেজের শিক্ষার্থী রাজিবের হাত বিচ্ছিন্ন ও মৃত্যুতে চার্জশিট

রাজধানীর কারওয়ান বাজারে দুই বাসের চাপায় তিতুমীর কলেজের শিক্ষার্থী রাজীব হাসানের প্রথমে হাত হারানো এবং পরে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যাওয়ার ঘটনায় করা মামলায় চার্জশিট দিয়েছে পুলিশ। দুই বাসচালককে অভিযুক্ত করে এ চার্জশিট দেওয়া হয়েছে।

আজ রবিবার (২ ফেব্রুয়ারি) ঢাকা মহানগর হাকিম ইলিয়াস মিয়ার আদালতে এ চার্জশিট জমা দেন শাহবাগ থানার উপ-পরিদর্শক ইদ্রিস আলী।যে দুই বাসচালককে অভিযুক্ত করে চার্জশিট দেওয়া হয়েছে তারা হলেন বিআরটিসি বাসচালক ওয়াহিদ ও স্বজন পরিবহনের বাসচালক মো. খোরশেদ।২০১৮ সালের ৩ এপ্রিল দুপুরে বিআরটিসির একটি দোতলা বাসের পেছনের ফটকে দাঁড়িয়ে যাচ্ছিলেন মহাখালীর সরকারি তিতুমীর কলেজের স্নাতক দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র রাজীব হোসেন।

বাসটি সোনারগাঁও হোটেলের বিপরীতে পান্থকুঞ্জ পার্কের সামনে পৌঁছলে পেছন থেকে স্বজন পরিবহনের বাসটি বিআরটিসি বাসের গা ঘেঁষে অতিক্রম করে। দুই বাসের চাপে গাড়ির পেছনে দাঁড়িয়ে থাকা রাজীবের হাত শরীর থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়।ওই ঘটনার পর পথচারীরা তাঁকে পান্থপথের শমরিতা হাসপাতালে ভর্তি করে। এরপর তাঁকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে নেওয়া হয়।

রাজীবের ডান হাত কনুইয়ের ওপর থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে প্রচুর রক্তক্ষরণ হয়। মাথায়ও আঘাত লাগে। পরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় গত ১৭ এপ্রিল তিনি মারা যান। তাঁর মৃত্যুর পর এ সংক্রান্ত মামলাটি দুর্ঘটনাজনিত হত্যা মামলায় রূপ নেয়।

Development by: webnewsdesign.com